fbpx

সার্জিক্যাল অপটোমেট্রিক লুপ পছন্দ করার সময় এই ৬ টি প্রয়োজনীয় বিষয় বিবেচনা করুন। Leave a comment

Spread the love

আপনার জন্য সেরা সার্জিকাল লুপ কীভাবে পছন্দ করবেন।

সাধারণভাবে, আপনার প্রয়োজন অনুযায়ী, যতটুকু সম্ভব “অল্প ম্যাগনিফিকেশন” এর একটি লুপ পছন্দ করা উচিত।

সহজ হিসাব: ম্যাগনিফিকেশন যত কম হবে আপনার ডেপথ অফ ভিউ এবং ডেপথ অফ ফিল্ড তত বেশি হবে। একই ভাবে, ওয়ার্কিং ডিস্টেন্স যত বেশি হবে, ফিল্ড অফ ভিউ তত বেশি হবে।

বেশি ফিল্ড অফ ভিউ এর সাহায্যে আপনি আপনার মাথাটি অনেক কম ঘুরিয়ে কার্যসম্পাদন করে নিতে পারবেন যা চোখের ক্লান্তি এবং চোখের স্ট্রেনকে হ্রাস করে।

আপনার ওপোমেট্রিক লুপগুলির ওজনের পাশাপাশি ফিটের প্রতিও বিশেষ মনোযোগ দেওয়া উচিত। বেশিরভাগ ক্ষেত্রে, হালকা লুপগুলি বেশি সময়ের জন্য ব্যবহারের ক্ষেত্রে আরও স্বাচ্ছন্দ্য দেয় এবং আপনার নাকের ব্রিজটি নীচে নেমে যাওয়ার সম্ভাবনা কমিয়ে দেয়।

সার্জিক্যাল লুপ আপনাকে আরও ভালভাবে দেখার এবং আপনার কাজ এর গুণমানকে আরও বাড়ানো’র ব্যাপার এ সহায়তা করার জন্য ডিজাইন করা হয়েছে। 

সঠিক সার্জিক্যাল লুপগুলি আসলে কোন রকম অসুবিধা তৈরি না করে আপনার দক্ষতা’র নতুন এক্সটেনশন গুলো কে এক্সপ্লোর করতে সহযোগিতা করবে।

সার্জিক্যাল লুপ আপনাকে আরও কার্যকর ভাবে কাজ করার পাশাপাশি আরাম এর দিক থেকে আরও সুচারু ভাবে শক্তিশালী করবে।

১. ম্যাগনিফিকেশন

সার্জিক্যাল অপটোমেট্রিক লুপ এর “ম্যাগনিফিকেশন” অপশন টি নির্ধারণ করে যে কোন আকার এর চিত্র প্রদর্শিত হবে। বেশিরভাগ ক্ষেত্রে, “ম্যাগনিফিকেশন” একটি অত্যন্ত ব্যক্তিগত পছন্দ। একটি সার্জিক্যাল অপটোমেট্রিক লুপ এ “ম্যাগনিফিকেশন” অপশন এর মাত্রা যত বেশি হবে তা তত বৃহত্তর চিত্র সরবরাহ করবে তবে এটি ডেপথ অফ ফিল্ড এবং ডেপথ অফ ভিউ এর পরিমান কমিয়ে দিবে।

বেশিরভাগ ক্ষেত্রে, প্রশিক্ষণে বা সাধারণ অস্ত্রোপচার এর ক্ষেত্রে ব্যবহার কারিরা একটি 3.0x বা 2.5x ম্যাগনিফিকেশন সহ লুপ এর মাদ্ধমে ভাল ফল পেতে পারেন। আপনার যদি আরও জটিল বা সূক্ষ্ম প্রক্রিয়া থাকে তবে আপনি একটি 4.5x বা 3.5x ম্যাগনিফিকেশন বেছে নেয়া টাই সব চেয়ে উপযুক্ত হবে।

ধরুন আপনি একটি মাইক্রোসার্জারি পরিচালনা করছেন বা খুব ক্ষুদ্র এরিয়া তে কাজ করছেন তবে 5.0x এর ম্যাগনিফিকেশন ফ্যাক্টরটি পছন্দ করুন। সার্জিকাল মাইক্রোস্কোপের জায়গায় আপনি একটি উচ্চতর ম্যাগনিফিকেশন সুবিধা সহ লুপ বেছে নিতে পারেন।

২. ফিল্ড অফ ভিউ

আপনি যখন সার্জিকাল লুপ এর ভিতর দিয়ে দেখেন তখন ফোকাসে থাকা অঞ্চলটিকে ফিল্ড অফ ভিউ বলা হয়। একটি লুপ এর ওয়ার্কিং ডিস্টেন্স যত বেশি হবে তা ফিল্ড অফ ভিউ কে বাড়িয়ে তুলবে। একই সময়ে, ম্যাগনিফিকেশন যত কম হবে ফিল্ড অফ ভিউ তত বৃদ্ধি পাবে।

৩. রেজোলিউশন

রেজোলিউশন লুপ এর মাদ্ধমে কতটা  বিশদ ভাবে দেখা যাবে তা নির্ধারণ করে। লেন্সগুলিতে ব্যবহৃত লেনস এবং গ্লাস এর ধরণ লুপের রেজোলিউশন এর ক্ষেত্রে দুর্দান্ত প্রভাব ফেলতে পারে। গ্রাফ পেপারের মাধ্যমে আপনি লুপের সেট দেখে পরীক্ষা করতে পারেন।

লাইনগুলির বক্রতা বা বিকৃতি তে মনোযোগ দেয়ার বিষয়টি নিশ্চিত করুন। উচ্চতর রেজোলিউশন এর লুপ গুলি স্ট্রেটার, ক্রিস্পার লাইন এর ভিউ দেবে। অন্যদিকে, নিম্ন রেজোলিউশন এর লেন্সগুলির মাধ্যম এ দেখা লাইন গুলি বাঁকা এবং সামান্য অস্পষ্ট হবে।

৪. ডেপথ অফ ফিল্ড

ডেপথ অফ ফিল্ড “ফিল্ড অফ ভিউ” এর মতো, ডেপথ অফ ফিল্ড সরাসরি ম্যাগনিফিকেশন ফ্যাক্টরের সাথে এবং ওয়ার্কিং ডিস্টেন্স এর সাথে সম্পর্কিত। 

কার্যত সমস্ত ক্ষেত্রে, ডেপথ অফ ফিল্ড বেশি হওয়া টাকে পছন্দ করা হয় কারণ আপনি অবস্থান পরিবর্তন করা ছাড়াই আরও গভীর ভাবে দেখতে সক্ষম হচ্ছেন। ডেপথ অফ ফিল্ড বেশি পাওয়ার জন্য, কম ম্যাগনিফিকেশন ফ্যাক্টর সহ অথবা বেশি ওয়ার্কিং ডিস্টেন্স সহ একটি লুপ পছন্দ করা উচিত।

৫. ওয়ার্কিং ডিস্টেন্স

লুপটি যে দূরত্বে ফোকাস করবে তাকে ওয়ার্কিং ডিস্টেন্স হিসাবে চিহ্নিত করা হবে, যা আপনি যে সাবজেক্ট টি দেখছেন তার উপরি ভাগ থেকে লুপের লেন্সের দূরত্বের সমান হতে হবে। 

প্রতিটি লুপের পূর্ব নির্ধারিত ওয়ার্কিং ডিস্টেন্স থাকে।

তবে আপনার কত টুকু ওয়ার্কিং ডিস্টেন্স প্রয়োজন তা ব্যবহৃত অপারেটিং টেবিল এর উচ্চতা, আপনি দাঁড়িয়ে নাকি বসে কাজ করছেন, আপনার গড়ন এবং পাশাপাশি আপনার উচ্চতার উপর নির্ভর করবে।

আপনার জন্য সর্বোত্তম ওয়ার্কিং ডিস্টেন্স কতটুকু তা আবিষ্কার করা এবং আপনার ক্রাইটেরিয়া গুলো পুরন করে এমন সার্জিক্যাল লুপ এর একটি সেট পছন্দ করা ভাল। মোটামুটি ধারণা করার জন্য, আপনি আপনার ওয়ার্কিং ডিস্টেন্স পরিমাপ করতে পারেন। 

এটি করার জন্য, কেবল সোজা হয়ে স্বাচ্ছন্দ্যে দাঁড়ান বা বসে থাকুন খুব ঝুকবেন না, এবং তারপরে তুলনামূলকভাবে আনুমানিক ধারণার জন্য আপনি যে সাবজেক্ট টি দেখছেন তার উপরি ভাগ থেকে আপনার চোখের দূরত্বটি পরিমাপ করুন। তাহলেই আপনি আপনার জন্য প্রয়োজনীয় ওয়ার্কিং ডিস্টেন্স এর পরিমাপ পেয়ে যাবেন।

৬.ইন্টার পিউপিলারি ডিস্টেন্স 

ন্টার পিউপিলারি ডিস্টেন্স  হ’ল আপনার দুটি চোখের মনির মধ্যে দূরত্ব। আপনার ব্যবহুত লুপটি আপনার চোখের উপর ভিত্তি করে একটি আরামদায়ক ফিট দিতে হবে। নির্ভুল পরিমাপের জন্য, আপনার অপটোমেটরিস্ট বা অপটিশিয়ান দিয়ে পরীক্ষা করুন। যদিও অধিকাংশ অপটমেট্রিক লুপ এডযাস্ট করা যায়, আপনার সব সময় ওই লুপগুলি পছন্দ করা উচিত যা আপনার জন্য উপযুক্ত।

Leave a Reply

Your email address will not be published.